বিনোদন

ক্যানসারজয়ী অভিনেত্রী আবার আক্রান্ত

‘তোমরা আমাকে সবাই জিজ্ঞেস করেছিলে যে কী হয়েছে? আসলে আমার শরীরটা এই কদিন ভালো ছিল না। আমি কিছু রিপ্লাই করতে পারিনি। এখন একটু পেইন কিলার খেয়েছি, একটু বেটার লাগছে। রিপোর্ট আসার কথা ছিল। ওটা কালকে আসবে…।’ বলেই কান্নায় ভেঙে পড়েন কলকাতার অভিনেত্রী ঐন্দ্রিলা শর্মা। ‘জিয়নকাঠি’ সিরিয়ালে জাহ্নবী চরিত্রে বেশ জনপ্রিয় হয়েছিলেন এই তরুণ অভিনেত্রী।
পাঁচ বছর আগে ক্যানসারে আক্রান্ত হয়েছিলেন অভিনেত্রী ঐন্দ্রিলা শর্মা। পাঁচ বছর পর আবার শরীরে কামড় বসিয়েছে এই প্রাণঘাতী রোগ। হঠাৎ শুটিংয়ে শরীর খারাপ লাগায় চলে আসেন বাসায়। তারপর পরীক্ষা-নিরীক্ষা করিয়ে ভর্তি হয়েছেন হাসপাতালে। সেখান থেকেই ভক্তদের জানান নিজের অসুস্থতার খবর। জানালেন, ক্যানসার থেকে জয়ী হয়ে ফিরেছিলেন। আবার সেই পুরোনো শত্রুর সঙ্গে দেখা। আবার লড়াই শুরু হলো।

১৬টি কেমো আর ৩৩টি রেডিয়েশন দিয়ে গতবার ক্যানসারযুদ্ধে জয়ী হয়েছিলেন এই অভিনেত্রী। কলকাতার স্থানীয় কয়েকটি সংবাদমাধ্যম পারিবারিক সূত্র থেকে জানিয়েছে, সরস্বতীপূজার আগের দিন ঐন্দ্রিলার কাঁধে বেশ যন্ত্রণা শুরু হয়। সেদিন তাঁর শুটিং ছিল, কিন্তু বাধ্য হয়ে তাড়াতাড়ি বাড়ি ফিরে আসেন। ঐন্দ্রিলার বোন একজন ডাক্তার। তাঁর পরামর্শেই কিছু চিকিৎসা নেন এই অভিনেত্রী। কিন্তু ব্যথা কমছেই না। অবশেষে গত রোববার চিকিৎসার জন্য দিল্লি পৌঁছান ঐন্দ্রিলা।

এরপর ঐন্দ্রিলার ডান দিকের ফুসফুসে টিউমার ধরা পড়ার খবর আসে মঙ্গলবারে। অপেক্ষা চলছিল বায়োপসি রিপোর্টের। সেই রিপোর্ট খারাপ খবর নিয়ে আসে। আবার ক্যানসার ধরা পড়ে ঐন্দ্রিলার। ২০১৫ সালে তিনি টেন্টস নামের এক বিরল ক্যানসারে আক্রান্ত হয়েছিলেন। সে যাত্রায় প্রায় দেড় বছর দীর্ঘ লড়াই শেষে জয়ী হয়েছিলেন ঐন্দ্রিলা। আবার পাঁচ বছর পর পুরোনো শত্রু হানা দিল ঐন্দ্রিলার শরীরে। তবে ইনস্টাগ্রামে ঐন্দ্রিলা জানিয়েছেন, ক্যানসারের বিরুদ্ধে আবারও হার না মানা যুদ্ধ শুরু হয়ে গেছে।

‘ঝুমুর’ ধারাবাহিক দিয়ে টেলিভিশনে যাত্রা শুরু ঐন্দ্রিলার। আছেন ‘জীবন জ্যোতি’ ধারাবাহিকেও। আর ‘জিয়নকাঠি’ ধারাবাহিকে জাহ্নবীর চরিত্রটি করে বেশ জনপ্রিয় হন। ধারাবাহিকের পাশাপাশি ‘শেষ থেকে শুরু’ ছবিতে অভিনেতা জিৎ–এর বোনের ভূমিকায় দেখা গেছে ঐন্দ্রিলাকে। এ ছাড়া পরিচালক অমিত দাসের ছবিতে নায়িকা হিসেবে দেখা যাবে তাঁকে।

সূত্রঃ প্রথম আলো

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button

Blocker Detected

Please Remove your browser ads blocker