স্বাস্থ্য পরামর্শ

হার্ট অ্যাটাকের ১ মাস আগে থেকেই সংকেত দেয় শরীর

প্রতিদিন হার্ট অ্যাটাকের কারণে পুরো বিশ্বে প্রাণ যায় অনেক মানুষের। অথচ হার্ট অ্যাটাকের অন্তত এক মাস আগে থেকে শরীর নানা রকমের সংকেত দেয়। তাই হার্ট অ্যাটাকের আগেই সাবধান হতে হলে এবং সঠিক সময়ে চিকিৎসা নিলে প্রাণ রক্ষা করা সম্ভব হয়।

হার্ট অ্যাটাক একটি ভয়ানক রোগ মানব শরীরের জন্য। যার একবার হার্ট অ্যাটাক হয়ে যায় তাকে প্রায় সারাজীবনই বেশ সতর্কভাবে জীবনযাপন করতে হয়। হৃদপিণ্ডের কোনো শিরায় রক্ত জমাট বেঁধে হৃদপিণ্ডে রক্ত প্রবাহে বাঁধার সৃষ্টি করে তখন হার্ট অ্যাটাক হয়ে থাকে।

সাধারণত বয়স, উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা, উচ্চ মাত্রায় খারাপ কোলেস্টোরল, অতিরিক্ত মোটা, অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস, মদ্যপান, মানসিক চাপ ও শারীরিক পরিশ্রম না করা হার্ট অ্যাটাকের অন্যতম প্রধান কারণ।

এক নজরে দেখে নিন সেসব সংকেত:
১। হঠৎ করেই খুব ক্লান্ত লাগলে সেটা হতে পারে হার্ট অ্যাটাক হওয়ার পূর্ব লক্ষণ। বিশেষ করে নারীদের ক্ষেত্রে এটা বেশি লক্ষ্য করা যায়। ক্লান্তিটা দিনে দিনে বাড়তে থাকে ও খুব সহজ কাজেই হাঁপিয়ে উঠার প্রবণতা দেখা যায়।

২। হার্ট অ্যাটাক ও স্ট্রোকের সঙ্গে অনিদ্রার সম্পর্ক আছে বেশ গভীর। বিশেষ করে নারীদের ক্ষেত্রে এটা বেশি লক্ষ্য করা যায়। হার্ট অ্যাটাকের পূর্ব লক্ষণ হিসেবে অনিদ্রার সমস্যায় অস্থিরতা থাকে। এছাড়াও খুব সকালে ঘুম ভেঙ্গে যাওয়ার সমস্যা দেখা দিতে পারে।

৩। বিভিন্ন কারণে পেট ব্যথা হতে পারে। তবে হার্ট অ্যাটাকের একটি পূর্ব লক্ষণও পেট ব্যথা। পেট ফেঁপে থাকা, খালি বা ভরা পেটে বমি ভাব বা ডায়রিয়াও হার্ট অ্যাটাকের পূর্ব সংকেত হতে পারে। তবে সেক্ষেত্রে একবার ব্যথা হয়ে সুস্থ হওয়ার খুব অল্প সময় পরে ব্যথা ফিরে আসে। কাজে সর্তক থাকুন।

৪। যদি শ্বাস নিতে কষ্ট হয়, বুক ভারী মনে হয়, বড় নিঃশ্বাস নিতে কষ্ট হয় তাহলে এটা হার্ট অ্যাটাকের পূর্ব সংকেত হতে পারে। হার্ট অ্যাটাক হওয়ার প্রায় ৬ মাস আগে থেকে শরীর এ ধরনের সংকেত দিতে থাকে।

৫। হুট করেই চুল পড়া বেড়ে গিয়েছে? তাহলে হার্ট সুস্থ আছে কিনা পরীক্ষা করিয়ে নিন। কারণ ৫০ বছর হওয়ার পরে পুরুষের চুল পড়ে যাওয়ার সঙ্গে হার্ট অ্যাটাকের ঝুঁকি তৈরি হওয়ার সম্পর্ক আছে।

৬। দুশ্চিন্তায় বা প্যানিক অ্যাটাকে অনেক সময় হৃদস্পন্দন হঠাৎ বেড়ে যায়। আবার ব্যায়ামেও বেড়ে যায়। কিন্তু এসব কারণ ছাড়াও যদি অনিয়মিত হৃদস্পন্দন লক্ষ্য করেন তাহলে অবশ্যই চিকিৎসকের সঙ্গে পরামর্শ করা উচিত।

৭। অধিক মানুষই হার্ট অ্যাটাক হয়েছে সেটা বুঝতে পারে যখন প্রচণ্ড বুক ব্যথা শুরু হয়। কিন্তু হার্ট অ্যাটাক হওয়ার প্রায় এক মাস আগে থেকেও কিন্তু হালকা ব্যথা হতে পারে বুকে। আবার বাম হাতে, থুঁতনির নিচে, ঘাড়ে অথবা পেটেও ব্যথা হতে পারে। ব্যথা অল্প অথবা দীর্ঘ সময় থাকতে পারে। এধরনের ব্যথা হলে অবহেলা না করে ডাক্তারের নিকট যাওয়া উচিত।

৮। নারীদের মেনোপজের সময় হরমোন পরিবর্তনের কারণে হঠাৎ অতিরিক্ত ঘাম হওয়া স্বাভাবিক। কিন্তু এছাড়া নারী বা পুরুষের হঠাৎ করেই অতিরিক্ত ঘাম হওয়া হার্ট অ্যাটাকের পূর্ব সংকেত হতে পারে।

হৃদ যন্ত্রকে সুস্থ্য ও সবল রাখতে নিয়মিত যত্নশীল হোন শরীরের প্রতি এবং প্রতি ৬ মাস অন্তর অন্তর চেকআপ করিয়ে নিতে পারেন।

তথ্য ও ছবি: সংগ্রহীত

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button

Blocker Detected

Please Remove your browser ads blocker